1. [email protected] : editorpost :
  2. [email protected] : jassemadmin :

বড় বড় কোম্পানিতে কর্মী ছাঁটাই

পৃথিবীর বড় বড় কোম্পানিতে কর্মী ছাঁটাইয়ের তোড়জোড় শুরু হয়েছে। বিভিন্ন আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমের খবর অনুসারে, গাড়ি কোম্পানি ফোর্ড, জাগুয়ার ল্যান্ড রোভার ও ফোন কোম্পানি ভোডাফোন কর্মী ছাঁটাই করবে। এই কর্মী ছাঁটাই মূলত ইউরোপকেন্দ্রিক। এতে এখন পর্যন্ত বড় ধরনের আতঙ্ক সৃষ্টি না হলেও একই দিনে এভাবে তিনটি বড় কোম্পানির কর্মী ছাঁটাইয়ের ঘোষণা কৌতূহলোদ্দীপক মনে করছেন বিশ্লেষকেরা।

গাড়ি কোম্পানি ফোর্ড যুক্তরাজ্যসহ ইউরোপের বিভিন্ন দেশে কর্মী ছাঁটাই করবে। তবে এর সঙ্গে ব্রেক্সিটের সম্পর্ক নেই বলে জানিয়েছেন ফোর্ডের ইউরোপ মহাদেশের প্রধান স্টিভেন আর্মস্ট্রং। মূলত ক্ষতি কমাতেই তাঁরা এ সিদ্ধান্ত নিয়েছেন। এতে ইউরোপ মহাদেশের কয়েক হাজার কর্মী চাকরি হারাবেন বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে, যদিও যুক্তরাজ্যে এখনই তারা খুব বেশি কর্মী ছাঁটাই করবে না।

খরচ কমানোর ব্যাপারে ফোর্ড কর্তৃপক্ষ ইউনিয়নের সঙ্গে আলোচনা করছে। তারা অধিক লাভজনক মডেল বাজারে নিয়ে আসার কথা ভাবছে। এর সঙ্গে যেসব বাজারে বেশি গাড়ি বিক্রি হচ্ছে না, সেসব বাজারও তারা ছাড়তে চাইছে। এ ছাড়া ভবিষ্যতের জন্য তারা বৈদ্যুতিক ও হাইব্রিড গাড়িতে বেশি বিনিয়োগ করবে। এ ছাড়া তারা বাণিজ্যিক গাড়ির ব্যবসাও বাড়াবে।

এদিকে জাগুয়ার ল্যান্ড রোভার বলেছে, তারা যুক্তরাজ্যের ৪০ হাজার কর্মীর মধ্যে পাঁচ হাজার কর্মী ছাঁটাই করবে। তারা মূলত ব্যবস্থাপনা, বিপণন ও প্রশাসনিক শাখার কর্মী ছাঁটাই করবে। জাগুয়ারকে ২৫০ কোটি ইউরো খরচ কমাতে হবে। এর অংশ হিসেবেই তারা এই ছাঁটাইয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছে। ফোর্ড ব্রেক্সিটের বিষয়ে কিছু না বললেও জাগুয়ারের উদ্বেগের কারণ ব্রেক্সিটসহ চীনে বিক্রি কমে যাওয়া এবং ডিজেলের চাহিদা কমে যাওয়া।

তবে চীনের বাজার ও ডিজেলের চাহিদা নিয়েই তারা বেশি উদ্বিগ্ন। কারণ, চীনই তাদের সবচেয়ে পয়মন্ত বাজার। কিন্তু বাণিজ্যযুদ্ধের অভিঘাতে চীনে অন্য সব পণ্যের মতো গাড়ির বিক্রিও কমছে। সম্প্রতি অ্যাপলও বলেছে, চীনে তাদের বিক্রি কমেছে। সে জন্য চলতি ত্রৈমাসিকে তাদের বিক্রির লক্ষ্যমাত্রা পূরণ হবে না। এ ছাড়া জাগুয়ারের চীনা পরিবেশকেরা বেশি বেশি প্রণোদনা দাবি করছেন, বিক্রি কমে যাওয়ার এটাও একটা কারণ।

ভোডাফোন বলেছে, মোবাইল ফোনের বাজার অত্যন্ত প্রতিযোগিতাপূর্ণ হয়ে গেছে। তাদের রাজস্ব ও মুনাফা কমছে। এই পরিস্থিতিতে বাজারে টিকে থাকতে তারা স্পেনে ১ হাজার ২০০ কর্মী ছাঁটাই করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। বিবৃতিতে তারা বলেছে, জানুয়ারির শেষ নাগাদ কর্মী প্রতিনিধিদের সঙ্গে তারা এ ব্যাপারে আলোচনা শুরু করবে।

বিশ্বব্যাংক, আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলসহ (আইএমএফ) সবাই বলছে, ২০১৯ সালে বৈশ্বিক প্রবৃদ্ধি কমে যাবে। তারা মূলত বাণিজ্যযুদ্ধকেই এর জন্য দায়ী করছে।

এদিকে বেলজিয়ামের টেলিকম কোম্পানি প্রক্সিমাস ঘোষণা দিয়েছে, আগামী তিন বছরে তাদের ১ হাজার ৯০০ কর্মী ছাঁটাই করার পরিকল্পনা আছে। যদিও তারা বলেছে, এই সময়ে ডিজিটাল প্রযুক্তিতে বিশেষায়িত জ্ঞানসম্পন্ন ১ হাজার ২৫০ জন কর্মী নিয়োগ দেওয়ার পরিকল্পনাও করছে তারা। প্রক্সিমাসের মুখ্য কর্মকর্তা ডমিনিক লিওরি বলেন, বাজারে খুবই আগ্রাসী প্রতিযোগিতা হচ্ছে। তাই ছাঁটাই ভিন্ন পথ নেই।

More News Of This Category